চিনি রপ্তানিতে বিধিনিষেধ আরোপ করলো ভারত

সারাদিন ডেস্কসারাদিন ডেস্ক
প্রকাশিত: ৮:০১ অপরাহ্ণ, ২৪/০৫/২০২২

স্থানীয় বাজারে দাম নিয়ন্ত্রণে রাখতে ছয় বছর পর চিনি রপ্তানিতে বিধিনিষেধ আরোপ করেছে ভারত সরকার। এর ফলে এই মৌসুমে তারা চিনি রপ্তানি ১০ মিলিয়ন বা এক কোটি টনের মধ্যে সীমাবদ্ধ রাখার পরিকল্পনা নিচ্ছে। ভারতের এই সিদ্ধান্তে বৈশ্বিক খাদ্য সংকট আরও বাড়ার আশঙ্কা তৈরি হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৪ মে) সূত্রের বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা রয়টার্স এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

বিশ্বের বৃহত্তম চিনি উৎপাদক ভারত, রপ্তানিতে তাদের অবস্থান কেবল ব্রাজিলের পেছনে। ভারত বিশ্বের অন্তত ১২১টি দেশে চিনি রপ্তানি করলেও তাদের প্রধান ক্রেতা ইন্দোনেশিয়া, বাংলাদেশ, সুদান ও সংযুক্ত আরব আমিরাত।

মঙ্গলবার (২৪ মে) ভারতীয় খাদ্য মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা রয়টার্সকে জানান, এই বছর দেশটি চিনি রপ্তানির সীমা এক কোটি টন নির্ধারণের পরিকল্পনা নিয়েছে।

প্রাথমিকভাবে ভারত চিনি রপ্তানির সীমা ৮০ লাখ টন করার পরিকল্পনা নিয়েছিল। কিন্তু পরে স্থানীয় কারখানাগুলোকে বিশ্ববাজারে আরও কিছু চিনি বিক্রির সুযোগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার।

কর্মকর্তাদের বরাতে রয়টার্স বলছে, শুরুতে ৮০ লাখ টন চিনি রপ্তানির পর তাতে লাগাম টানার চিন্তা ছিল ভারত সরকারের। কিন্তু উৎপাদন বেশি হওয়ায় আরও কিছু চিনি রপ্তানিতে সায় দিয়েছে সরকার। এখন এক কোটি টন রপ্তানি হয়ে গেলেই নিষেধাজ্ঞা আসতে পারে।

Nagad

সারাদিন/২৪ মে/এমবি