শৈলকুপায় চারদিন পর উদ্ধার হলো ফসলরক্ষা জালে আটকে থাকা গুইসাপ

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি:ঝিনাইদহ প্রতিনিধি:
প্রকাশিত: ৭:২৮ অপরাহ্ণ, ২৫/০৫/২০২২

ঝিনাইদহের শৈলকুপা উপজেলার নাগিরাট গ্রামে এক কৃষকের ক্ষেতের জালে ৪দিন ধরে আটকা একটি গুইসাপ উদ্ধার করে তা নিকটস্থ জঙ্গলে ছেড়ে দিলেন পরিবেশ রক্ষায় নিবেদিত কর্মী জহির রায়হান। এ কাজের সহযোগী ছিলেন জহির রায়হানের ছেলে তপু রায়হান ও সহকর্মী কাজি বজলুর রহমান।

নাগিরাট গ্রামের সবেদ শাহের ছেলে মেহেদি হাসান জানালেন, শুক্রবার বিকেলে তিনি গুইসাপটি তার বসতঘরের পেছনের ক্ষেতে জালে আটকা দেখে তৎক্ষণাৎ ৯৯৯- এ ফোন দিলে তারা দীর্ঘক্ষণেও তার কথা মনোযোগ দিয়ে না শুনে উল্টো তাদের সেবার মান সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বিরক্ত হয়ে ফোনটি বিচ্ছিন্ন করে দেন। পরবর্তীতে তিনি রবিবার তাদের ফোন পেয়ে বিস্তারিত আলাপ করেন।

পরিবেশ রক্ষাকারী কর্মী জহির রায়হান জানান, গত রবিবার বিভাগীয় বন কর্মকর্তার অফিস খুলনা এবং ৯৯৯ থেকে তাকে ফোন করে জানানো হয় যে, শৈলকুপা উপজেলার নাগিরাট গ্রামে সবেদ শাহের বাড়ির পাশে ফসলরক্ষায় পেতে রাখা জালে ৪দিন ধরে আটকা একটি গুইসাপ আটকে আছে। সোমবার সকালে তিনি তার টিমের সদস্য সহকর্মী কাজী বজলুর রহমান, ছেলে তপু রায়হান এবং একজন প্রবীণ সাংবাদিককে নিয়ে উপস্থিত হন নাগিরাট গ্রামে। জালে আটকা গুইসাপটি উদ্ধার করে তিনি অবমুক্ত করেন নিকটস্থ জঙ্গলে।

খুলনা বিভাগীয় বন্যপ্রাণী ব্যবস্থাপনা ও প্রাকৃতিক সংরক্ষণ বিভাগের কর্মর্কতা নির্মল কুমার পালের সাথে মুঠোফোনে আলাপ করলে তিনি জানান, বন্যপ্রাণী ধরা, নিধন ও এ বিষয়ে করণীয় বিষয়ে বিভিন্ন এলাকায় যুবসমাজের মাঝে প্রশিক্ষণ দেয়া হয়েছে। উল্লিখিত গুই সাপটি উদ্ধারেও একজন প্রশিক্ষিত যুবক জহির রায়হান তা উদ্ধার করে জঙ্গলে অবমুক্ত করেছেন যা সমাজে অনুকরণীয় হয়ে থাকবে বলে মনে করেন নির্মল কুমার পাল।