এমএসআই কুইজ প্রতিযোগিতা’র পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত

ঢাকার একটি স্থানীয় রেস্ট্ররেন্টে অনুষ্ঠিত হলো এমএসআইয়ের কুইজ প্রতিযোগিতা-২০২২ এর পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান।

শনিবার (২৫জুন) এই অনুষ্ঠানের আয়োজনে ছিল এমএসআইয়ের স্থানীয় মার্কেট ডিস্ট্রিবিউটর “ হোয়াটশেল লিমিটেড।

অনুষ্ঠানে অতিথি হিসাবে বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন হোয়াইটশেলের ব্যবস্থাপনা পরিচালক হাবিবা নাসরিন রিতা । অনুষ্ঠানে চূড়ান্ত পর্বের প্রতিযোগীরা ছাড়াও উপস্থিত ছিলো হোয়াইটশেলের অন্যান্য কর্মকর্তা ও কর্মচারী বৃন্দ।

তিন পর্বে অনুষ্ঠিত এই কুইজ প্রতিযোগিতায় সারাদেশ হতে ছাত্রছাত্রী সহ প্রায় ৫ শতাধিক প্রতিযোগী অংশগ্রহণ করেন। ফেব্রুয়ারি ২০২২ সালে শুরু হয়ে এই প্রতিযোগিতা শেষ হয় মে ২০২২ এ। অনলাইনে অনুষ্ঠিত এই কুইজ প্রতিযোগিতায় প্রথম স্থান অধিকার করেন ব্র্যাক ইউনির্ভাসিটির কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের শিক্ষার্থী আজমানুল আবেদীন অমি, দ্বিতীয় এবং তৃতীয় স্থান অধিকার করেছেন যথাক্রমে সুমিটোমো মিটসুই কন্সট্রাকশন কোম্পানি লি: এ কর্মরত সিভিল ইঞ্জিনিয়ার সৈয়দ আরিফুল ইসলাম এবং ইউনিভার্সিটি অব এশিয়া প্যাসিফিকের কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের শিক্ষার্থী বিপু আলম ইমন।

কুইজ প্রতিযোগিতায় প্রথম স্থান অধিকারী ব্র্যাক ইউনিভার্সিটির কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের শিক্ষার্থী আজমানুল আবেদীন বলেন- প্রথমে ভেবেছিলাম এটি অন্যসব কুইজ প্রতিযোগিতার মতই , কিন্তু না এটি সম্পূর্ণ ভিন্ন ধরনের একটি আয়োজন যেখানে প্রথম পর্বে ছিল কুইজ , দ্বিতীয় পর্বে ছিল রিভিউ লেখা এবং তৃতীয় পর্বে ছিল এমএসআইয়ের বিভিন্ন মডেলের পণ্যের উপর প্রশ্নোত্তর। রিভিউ লেখার পর্বটা আমি খুবই উপভোগ করেছি কারণ আমি রিভিউ লেখাটা জানতাম না এই প্রতিযোগিতার মাধ্যমে শিখলাম।

আয়োজন নিয়ে হোয়াইটশেলের ব্যবস্থাপনা পরিচালক হাবিবা নাসরিন রিতা বলেন- তরুণদের মধ্যে তথ্যপ্রযুক্তির সঠিক ব্যবহারকে উৎসাহিত করতে আমাদের এই আয়োজন। তথ্যপ্রযুক্তিতে কাজের পরিসর অনেক বড় এবং আমাদের তরুণরা পড়াশুনার পাশাপাশি তথ্যপ্রযুক্তিতে বিভিন্ন ধরনের কাজের সাথেই সম্পৃক্ত হতে পারে যা তাদের ইন্ড্রাষ্ট্রি সম্পর্কে জানতে পারে সেই জন্যেই এই আয়োজন । কেননা আমরা বিশ্বাস করি তরুণরা বিশেষ করে যারা আইটিতে ক্যারিয়ার করতে চায় তারা যত তাড়াতারি ইন্ডাস্ট্রিকে জানবে ততই তাদের চাকুরী বাজারর প্রতিযোগিতাটা সহজ হয়ে যাবে।

Nagad

হোয়াইটশেল আগামীতেও এ ধরনের আয়োজন করবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন আয়োজকরা।